1. azahar@gmail.com : azhar395 :
  2. admin@gazipursangbad.com : eleas271614 :
শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১১:২৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
গলদাপাড়া নিয়ামত আলী উচ্চ বিদ্যালয় ও প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া সাংকৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত।-গাজীপুর সংবাদ  শরণখোলায় বয়লার মুরগীর চিকেন খেয়ে ভাইরাস আক্রান্ত হয়ে শিশুর মৃত্যু-গাজীপুর সংবাদ  নাটোরের গুরুদাসপুর থানার চাঞ্চল্যকর হত্যা মামলার আসামী গ্রেফতার-গাজীপুর সংবাদ  গলাচিপায় জাতীয় ভোটার দিবস ২০২৪ উপলক্ষে র‍্যালি ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত-গাজীপুর সংবাদ  সরকারি সহকারী শিক্ষক সমিতি সুনামগঞ্জের জামালগঞ্জ উপজেলা শাখার নতুন কমিটি গঠন-গাজীপুর সংবাদ  কাপাসিয়ায় খামারীদের মাঝে মিল্কিং মেশিন বিতরণ-গাজীপুর সংবাদ  স্বামীকে হত্যা করে অন্যকে ফাঁসাতে গিয়ে নিজেই ফেঁসে গেলেন স্ত্রী জিনিয়া ইসলাম মীম।-গাজীপুর সংবাদ  রাণীশংকৈলে ভোটার দিবস পালিত-গাজীপুর সংবাদ  শোভাযাত্রা ও আলোচনা সভার মধ্যে দিয়ে নাটোরে ৬ষ্ঠ জাতীয় ভোটার দিবস পালিত-গাজীপুর সংবাদ  পটুয়াখালীর পৌরসভা নির্বাচনে ৫নং ওয়ার্ডের ডালিম প্রতীক প্রচারণায় ও সমর্থনে এগিয়ে-গাজীপুর সংবাদ 

দক্ষিণবঙ্গ পটুয়াখালী তীব্র শীতে জনজীবন বিপর্যস্ত।-গাজীপুর সংবাদ 

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেটের সময় : রবিবার, ১৪ জানুয়ারী, ২০২৪
  • ১৮ টাইম ভিউ

মোঃ মামুন হোসাইন।পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধিঃ

দেশজুড়ে জেঁকে বসেছে ঘন কুয়াশা ও তীব্র শীত। দক্ষিণবঙ্গ পটুয়াখালী জেলায় ঘন কুয়াশায় রোদের দেখা পাওয়া যাচ্ছে না। ফলে দিন ও রাতে প্রায় একই রকম শীত পড়ছে।

জনজীবন তীব্র শীতে দুর্ভোগে পড়েছেন বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ। বরিশাল,পিরোজপুর, বাগেরহাট,ভোলা,বরগুনা ও পটুয়াখালী থেকে দৈনিক জনবাণী প্রতিবেদকও প্রতিনিধিদের পাঠানো তথ্যে বলছে, এ বছর শীতের কারণে সকল শ্রেণী পেশার মানুষ ঘর থেকে কম বের হচ্ছেন। ইতিমধ্য শ্রমজীবী মানুষের রুজি রোজগার ও আয় অনেকটাই কমেছে। সেই সাথে পটুয়াখালী জেলা হাসপাতালে শিশু ও প্রবীণ রোগীর ভিড় ক্রমাসি বাড়ছে।

পটুয়াখালী জেলার আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে, এই তীব্র শীত আরও দু–তিন দিন থাকতে পারে এমনটাই বলা হয়েছে । এবং আরো জানায় চলতি ইং মাসের ১৭ থেকে ১৯ জানুয়ারি আকাশ মেঘলা থাকবে সেই সাথে হতে পারে বৃষ্টি । বৃষ্টির পর আবার তীব্র শীতের প্রভাব থাকতে পারে। মাসের বাকি সময় থাকতে পারে তীব্র শীত। এ সময়ে দেশের দক্ষিণবঙ্গে বয়ে যেতে পারে শৈত্যপ্রবাহ আবহাওয়া ।

গত তিন দিন ধরে বরিশাল বিভাগে শীতের প্রকোপ অনেকটাই বেড়ে যাওয়ায় দুর্ভোগ বেড়েছে ছিন্নমূল মানুষের। তীব্র শীত আর এক টানা ঘন কুয়াশার কারণে পটুয়াখালীতে অনেকাংশ মানুষ জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। তুষারাচ্ছন্ন বাতাস আর ঘন কুয়াশায়সহ হাড় কাপাঁনো শীতে জবুথবু হয়ে পড়েছে এ জেলার মানুষ । তবে এরই মধ্য শিশু ও বৃদ্ধরা ঠান্ডাজনিত বিভিন্ন কারণে রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন। এতে সর্দি, কাশি ও হাপানিজনিত রোগের প্রাদুর্ভাব দেখা দিয়েছে। দিন মজুর পরিবারের মধ্য বয়সী ও বৃদ্ধরা কর্মহীন হয়ে পড়েছে।পটুয়াখালী জেলার বিভিন্ন উপজেলায় ঘুরে দেখা যায়, জেলার বাউফল , দশমিনা, দুমকি,মির্জাগঞ্জ , গলাচিপা,কলাপাড়া ও পটুয়াখালী সদর উপজেলা জুড়ে নেমে এসেছে উত্তর পশ্চিমের কনকনে বাতাস শৈত্যপ্রবাহ। প্রচণ্ড তীব্র শীত আর এক টানা ঘন কুয়াশার কারণে জেলা ও উপজেলা গুলোর জনজীবন অচল হয়ে পড়েছে। একই সঙ্গে ঘন কুয়াশার চাদরে ঢাকা পড়েছে জনপদ। ঘন কুয়াশার কারণে যানবাহন গুলো দুপুর পর্যন্ত হেডলাইট জ্বালিয়ে চলাচল
করতে দেখা গেছে। শীতের প্রকোপে অভাব মানুষের জীবন বাঁচানোই দায় হয়ে পড়েছে। রাঙ্গাবালী উপজেলার চালিতা বুনিয়া গ্রামের মোঃ সাকুর আহমেদ এর পরিবার বলেন, আমরা খেটে খাওয়া মানুষ । প্রতিদিন কাজ না করলে আমাদের সংসার চলে না। কয়েকদিন যাবত অতিরিক্ত ঘন কুয়াশা ও প্রচণ্ড ঠান্ডা বাতাসের কারণে আমরা কাজে যেতে পারছি না। সরকারের পক্ষ থেকেও এই দীপ অঞ্চলের মানুষেরা কোনো সহযোগিতা পাচ্ছি না। কলাপাড়া উপজেলার বাবলাতলা গ্রামের ব্যবসায়ী মোঃ রাশিদ উদ্দিন বলেন, আমরা প্রতিদিন ব্যবসা দিয়ে সংসার চালাই। তবে এই দুই তিন দিন ঘন কুয়াশা ও ঠান্ডার কারণে হাত পা অবশ হয়ে আসছে যার ফলে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও সকল প্রকার কাজকর্ম করতে পারছি না।

এদিকে গলাচিপা উপজেলা বকুল বাড়ীয়া গ্রামের ব্যবসায়ী আব্দুর রহিম বলেন, দুই থেকে তিন দিন ধরে চলছে এই তীব্র শীত আর টানা ঘন কুয়াশার কারণে আমরা ক্ষেতে যেতে পারছি না এমনকি আমার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানও বন্ধ রয়েছে সেই সাথে সংসার চালাতে হিমশিম খেতে হয় ৷
পটুয়াখালী সদর হাসপাতালের কর্মরত চিকিৎসক জানায়, তীব্র শীতের কারণে সর্দি, কাশি ও হাপানিজনিত রোগের রোগী বেশি দেখা দিয়েছে সেই সাথে সার্বক্ষণিক আমাদের উন্নত চিকিৎসা সেবা চলমান রয়েছে।

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর
© All rights reserved © 2023
Developer By Zorex Zira

Design & Developed BY: ServerSold.com

https://writingbachelorthesis.com